পাইকগাছায় বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড নিয়ে আপত্তিকর বক্তব্য, যুবলীগনেতার নামে মামলা

  • 23 Dec
  • 01:22 PM

নিজস্ব প্রতিবেদক 23 Dec, 20

১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের নির্মম হত্যা কাণ্ডের ঘটনা নিয়ে বক্তব্য দিতে গিয়ে বিপাকে পড়েছেন পাইকগাছা উপজেলা যুবলীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য আব্দুর রাজ্জাক রাজু। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার পাইকগাছা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে যুবলীগনেতা রাজুর বিরুদ্ধে পৃথক দুটি মামলা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ড নিয়ে আপত্তিকর বক্তব্য দেয়ার অভিযোগ এনে মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব সৈয়দ সালামুল্লাহ ও মারপিটের অভিযোগ এনে লিটন সরদার বাদী পৃথক এ দুটি মামলা করেন। যার নং- সিআর ৮১৯/২০২০ ও ৮২০/২০২০, তারিখ- ২২/১২/২০২০। মামলা দুটি আমলে নিয়ে আদালত তদন্তের জন্য পিবিআই-কে নির্দেশ দিয়েছে।

জানা যায়, গত ৯ ডিসেম্বর কপিলমুনি মুক্ত দিবসের অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিতে গিয়ে যুবলীগনেতা আব্দুর রাজ্জাক রাজু অসাবধানতা বশত: ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কিছু বিপদগামী সেনা সদস্যরা বঙ্গবন্ধুকে স্ব-পরিবারে হত্যা করে জাতিকে কলঙ্কমুক্ত করেছে এ ধরণের বক্তব্য দেয়।

পরে তার এ বক্তব্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ব্যাপক তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে কপিলমুনি প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে ক্ষমা চায় আব্দুর রাজ্জাক রাজু। শেষমেষ বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গড়িয়েছে।

এ ব্যাপারে আব্দুর রাজ্জাক রাজু জানান, বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারকে হত্যা করে জাতিকে কলঙ্কিত করেছে এমন বক্তব্য দিতে গিয়ে অসাবধানতা বশতঃ কলঙ্কমুক্ত হয়ে যায়। পরে বিষয়টি বুঝতে পেরে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আমি ক্ষমা চেয়েছি।