বঙ্গবন্ধু সোশ্যাল ইনোভেশন এওয়ার্ড- ২০২০ এ চ্যাম্পিয়ন বেরোবি শিক্ষার্থী

  • 30 Dec
  • 11:52 AM

বেরোবি প্রতিনিধি 30 Dec, 20

বাংলাদেশ ডিজিটাল সোশ্যাল ইনোভেশন ফোরাম কর্তৃক আয়োজিত বঙ্গবন্ধু সোশ্যাল ইনোভেশন এওয়ার্ড -২০২০ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের জেন্ডার এন্ড ডেভলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের ১ম বর্ষের শিক্ষার্থী আনিকা রোকাইয়া রওশন রেশমি। উক্ত প্রতিযোগিতায় ইন্টিগ্রেটেড কমিউনিটি ডেভলপমেন্ট ক্যাটাগরিতে সারা বাংলাদেশ থেকে যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য বিষয়ে ডিজিটাল প্রযুক্তির ব্যবহারের মেল বন্ধন তৈরী করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে৷

বাংলাদেশ ডিজিটাল সোশ্যাল ইনোভেশন ফোরাম সামাজিক উদ্ভাবন ও পরিবেশগত চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় মানুষ এবং ডিজিটাল প্রযুক্তিকে একত্রিত করে উদ্যোক্তা তৈরী করতে সাহায্য করে। বিশ্বজুড়ে স্বাস্থ্যসেবা, শিক্ষা ও কর্মসংস্থান থেকে শুরু করে গনতান্ত্রিক অংশগ্রহন, মাইগ্রেশন এবং পরিবেশের বিভিন্ন ক্ষেত্র গুলোতে সামাজিক ও পরিবেশগত চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় হাজার হাজার মানুষ, বিভিন্ন প্রকল্প এবং সামাজিক সংস্থা গুলো ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহার করছে আর মানুষ এবং প্রযুক্তির যৌথ প্রয়াস কে একটি প্ল্যাটফর্মের আওতায় একত্রিত করা কে ডিজিটাল স্যোশাল ইনোভেশন হিসেবে অবহিত করা হয়।আর এ ব্যাপারে সঠিক দিক-নির্দেশনা প্রদান ও কার্যকরি পদক্ষেপ গ্রহনে বিশেষ ভূমিকা পালন করে ডিজিটাল স্যোশাল ইনোভেশন সামিট। বাংলাদেশ ডিজিটাল সোস্যাল ইনোভেশন ফোরাম জাতিসংঘের টেকসই উন্নয়ন নীতিমালা বাস্তবায়নে সরকারের সহায়ক হিসেবে কাজ করে।

জাতিসংঘের টেকসই উন্নয়ন নীতিমালা বাস্তবায়নে, উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা ১,২,৫,৯,১১ ও ১৩ নম্বর লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে বাংলাদেশ ডিজিটাল স্যোশাল ইনোভেশন ফোরাম কাজ করে আসছে।

এ বিষয়ে চ্যাম্পিয়ন আনিকার কাছে জানতে চাইলে সে জানায়, এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করা এবং কোয়ালিফাই করা আমার জন্য অনেক চ্যালেঞ্জের ছিলো।
কারণ আমি ছাড়া বাকিরা সবাই কোনো না কোনো প্রতিষ্ঠানের সিইউও বা তাদের প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা। তবে আমি আমার টিমকে ধন্যবাদ দিতে চাই তারা না হলে হয়তো আমার এই সাফল্য অধরাই থেকে যেতো। তাই সর্বোপরি বলতে চাই এই সাফল্য শুধু আমার নয়, এটি আমার টিমের প্রতিটা সদস্যদের।