বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুরের প্রতিবাদে নোবিপ্রবিতে মানববন্ধন

  • 07 Dec
  • 03:00 PM

এস আহমেদ ফাহিম,নোবিপ্রবি প্রতিনিধি 07 Dec, 20

কুষ্টিয়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভাঙচুরের প্রতিবাদে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (নোবিপ্রবি) মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।



আজ সোমবার (০৭ ডিসেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি ভাস্কর্যের সামনে অনুষ্ঠিত এই মানবন্ধনে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ দিদার-উল-আলম, কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফারুক উদ্দিন, রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. মোঃ আবুল হোসেন, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. নেওয়াজ মোহাম্মদ বাহাদুর, অফিসার্স এসোসিয়েশনের সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।

মানববন্ধন শেষে প্রশাসনিক ভবনের সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।এতে সঞ্চালনা করেন নোবিপ্রবি ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক আফসানা মৌসুমী।


সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ দিদার-উল-আলম বলেন, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৪৭ সাল থেকে স্বাধীন বাংলাদেশের জন্য লড়াই আর সংগ্রাম করে আসছেন। তিনি তার ৫৫ বছর জীবনে ২২
বছরই জেল খেটেছেন এদেশের মুক্তিকামী মানুষের স্বপ্ন পূরণের জন্য। তিনি ছিলেন অসাম্প্রদায়িক বাঙালি। আমাদের মুক্তিযুদ্ধের মহান স্থপতি ও এদেশের জাতির পিতা। অথচ আজ স্বাধীনতাবিরোধী চক্র কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ
মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভেঙ্গে দেয় কোন দুঃসাহসে। আমরা আজকের মানববনন্ধনের থেকে এমন ন্যাক্কারজনক ঘটনার তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করছি। তিনি আরো বলেন, ইতিমধ্যে ভাস্কর্য ভাঙ্গার ঘটনায় চারজন গ্রেপ্তার হয়েছে, আমি এর সাথে জড়িত মাস্টারমাইন্ডদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও পরবর্তীতে যথোপযুক্ত শাস্তির দাবি করছি’।





প্রসঙ্গত: শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) দিবাগত রাতে কুষ্টিয়া শহরের পাঁচ রাস্তার মোড়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুশেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্যের মুখ ও হাতের অংশে ভাঙচুর করা হয়।