• 06 Sept
  • 07:56 PM
'হ্যালো ছাত্রলীগ' এর সুফল পাচ্ছে মারমেক হাসপাতালের রোগীরা

ভার্সিটি ভয়েস ডেস্ক 06 Sept, 19

বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার উদ্ভাবিত অনন্য কার্যক্রম "হ্যালো ছাত্রলীগ" এর সুফল পাচ্ছে এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের রোগীরা।গত ৩সেপ্টেম্বর রোজ মঙ্গলবার দিনাজপুরের মাটি ও মানুষের নেতা মাননীয় হুইপ জনাব ইকবালুর রহিম এমপির অনুপ্রেরণা ও দিক নির্দেশনায় এবং বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার উদ্যোগে "হ্যালো ছাত্রলীগ" কার্যক্রমের শুভ সূচনা করা হয়।

এ কার্যক্রমের মাধ্যমে হাসপাতালের রোগীদের যে কোন ধরনের সমস্যার সমাধান ও যাবতীয় সহযোগিতা প্রদান করবে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার সদস্যবৃন্দ।এ বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে হাসপাতালের সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি এক রোগীর স্বজন বলেন, "এ উদ্যোগটি খুব চমৎকার। এর মাধ্যমে আমি নিজেও আজকে সুবিধা পেয়েছি।আমার জরুরি রক্তের প্রয়োজন ছিল। ব্যানারে প্রদত্ত নাম্বারে ফোন দেয়ার সাথে সাথেই ছাত্রলীগের সদস্যরা আমাকে রক্ত জোগাড় করে দিয়েছে। আমি তাদের নিকট কৃতজ্ঞ।সব হাসপাতালে এমন কার্যক্রমের চালু করা হলে রোগীদের ভোগান্তি কমবে এবং দালালের দৌরাত্ম কমবে বলে আমার বিশ্বাস।"
অন্য এক রোগীর আর্থিক সমস্যার ফলে পথ্য কেনার সামর্থ্য ছিল না।তিনি "হ্যালো ছাত্রলীগ" এর মাধ্যমে তাঁর অবস্থা জানালে তাঁর জন্য ছাত্রলীগের সদস্যবৃন্দ নিজ খরচে তাঁর পথ্য কেনার ব্যবস্থা করেন।

এ অনন্য কার্যক্রম সারা বাংলায় ছড়িয়ে পড়ার ব্যাপারে আশাবাদী বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার নেতা-কর্মীরা।বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার সভাপতি নাহিদ রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ নিজামুদ্দিন সম্রাটের মতে,"এ কার্যক্রমের একমাত্র অনুপ্রেরণা প্রদানকারী আমাদের নেতা হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি।আমরা এর বাস্তবায়ন করছি।এমন ইতিবাচক কাজের মাধ্যমে আমরা জনগনের ভালোবাসা আর বিশ্বাস অর্জনের পাশাপাশি জাতির পিতার স্বপ্ন সোনার বাংলা গড়ার জন্য এগিয়ে যাব"।এর মাধ্যমে রোগীদের সহযোগিতা করার পাশাপাশি দালালের দৌরাত্ম কমানোও সম্ভব হবে বলে বিশ্বাস বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ শাখার সদস্যবৃন্দের।